রবিবার ২৩শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৯ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

লিভার সুস্থ রাখতে এড়িয়ে চলবেন যেসব খাবার

লাইফস্টাইল ডেস্ক:   |   মঙ্গলবার, ১৪ জুন ২০২২ | প্রিন্ট  

লিভার সুস্থ রাখতে এড়িয়ে চলবেন যেসব খাবার

দুনিয়াজুড়ে লিভারের রোগে আক্রান্তের সংখ্যা ক্রমশই বেড়ে চলেছে। বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই নিজেদের কিছু বদ অভ্যাস ও ভুলের কারণেই শরীরে বাসা বাঁধে লিভারের অসুখ। রক্ত থেকে যাবতীয় দূষিত পদার্থ দূর করতে সাহায্য করে লিভার। তাই লিভার সচল রাখতে কয়েকটি দিকে খেয়াল রাখা জরুরি। বিশেষ করে কয়েক ধরনের খাবার ক্ষতি করতে পারে এই লিভারের।

১. কেক, পেস্ট্রি ও কুকিজের মতো খাবার লিভারের স্বাস্থ্যের জন্য ভালো নয়। সকালের নাস্তাতে অনেকেই পাউরুটিতে জেলি মাখিয়ে খান। চিকিৎসকরা বলছেন, এই ধরনের খাবারে ট্রান্স ফ্যাট থাকে। এই ফ্যাট নিয়মিত লিভারে গেলে ক্ষতি হতে পারে।

২. শুধু পাউরুটিতে নয়, বাইরের ভাজা, তেল-মসলাদার, চপ-কাটলেটের মতো খাবারেও ভরপুর ফ্যাট থাকে। নিয়মিত এ ধরনের খাবার পেটে গেলেই লিভারের নানা সমস্যা তৈরি হয়। ফলে লিভারের বড় ধরনের কোনো রোগ হওয়ার আশঙ্কা থাকে।

৩. নিয়মিত মদপান লিভারের জন্য অত্যন্ত ক্ষতিকর। লিভার রক্তে অবস্থিত অ্যালকোহল দূর করে। রক্ত পরিশুদ্ধ করতে সাহায্য করে। কাজেই অতিরিক্ত মদপান করলে লিভারের ওপর অতিরিক্ত চাপ পড়ে। এতে লিভারের কোষগুলোর মারাত্মক ক্ষতি হতে পারে। লিভার সুস্থ রাখতে তাই মদপান এড়িয়ে চলা একান্তই জরুরি।

৪.মাত্রাতিরিক্ত হারে চিনি খাওয়ার অভ্যাসও লিভারের ক্ষতি করতে পারে। সরাসরি চিনি খাওয়া তো ক্ষতিকর বটেই। এ ছাড়াও চিনি আছে এমন কোনো খাবার, যেমন: মিষ্টি, ক্যান্ডি, চকলেট নিয়মিত খেলে পরবর্তী সময়ে লিভারের সমস্যা দেখা দিতে পারে।

৫.ময়দাও কিন্তু লিভারের জন্য ভালো নয়। ময়দার তৈরি কোনো খাবার বেশি খাওয়া ভলো নয়। ময়দা দিয়ে তৈরি এই ধরনের প্রক্রিয়াজাত খাবার লিভারের জন্য মারাত্মক ঝুঁকি ডেকে আনতে পারে। তাই ময়দার তৈরি খাবার বেশি এবং রোজ না খাওয়াই ভালো।

সূত্র : আনন্দবাজার

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৪:৪০ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, ১৪ জুন ২০২২

nypratidin.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর...

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০  

Editor : Naem Nizam

Executive Editor : Lovlu Ansar