রবিবার ১৯শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৫ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

জুলাইয়ে সৌদি আরবসহ মধ্যপ্রাচ্য সফরে যাচ্ছেন বাইডেন

প্রতিদিন ডেস্ক   |   বুধবার, ১৫ জুন ২০২২ | প্রিন্ট  

জুলাইয়ে সৌদি আরবসহ মধ্যপ্রাচ্য সফরে যাচ্ছেন বাইডেন

আমেরিকার প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের সৌদি আরব সফরের তথ্য নিশ্চিত করেছে হোয়াইট হাউস। আগামী মাসে অনুষ্ঠিতব্য এই সফরে তিনি সৌদি ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের (এমবিএস) সঙ্গে বৈঠকও করবেন। স্থানীয় সময় মঙ্গলবার (১৪ জুন) সৌদি আরব-সহ মধ্যপ্রাচ্যে প্রেসিডেন্টে বাইডেনের প্রথম এই সফরের বিবরণ হোয়াইট হাউস নিশ্চিত করে বলে জানিয়েছে সংবাদমাধ্যম আলজাজিরা।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সাম্প্রতিক সপ্তাহগুলোতে মধ্যপ্রাচ্যে ওয়াশিংটনের গুরুত্বপূর্ণ মিত্র সৌদি আরবসহ ইসরায়েলে বাইডেনের সম্ভাব্য সফর নিয়ে মার্কিন গণমাধ্যমগুলোতে প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। বেশ কয়েক দফায় প্রকাশিত এমন প্রতিবেদনের কোনোটিই এতোদিন নিশ্চিত করেনি বাইডেন প্রশাসন।

তবে ১৪জুন বাইডেনের সৌদি সফর নিশ্চিত করেন মার্কিন কর্মকর্তারা। এদিন বাইডেন প্রশাসন জানায়, আগামী ১৩ থেকে ১৬ জুলাইয়ের মধ্যে সৌদি আরবসহ মধ্যপ্রাচ্যে বাইডেনের সফর অনুষ্ঠিত হবে। সৌদির পাশাপাশি বাইডেন সেসময় ইসরায়েল এবং ফিলিস্তিনের অধিকৃত পশ্চিম তীরও পরিদর্শন করবেন।

আলজাজিরা বলছে, সফরে সৌদি আরবে অবস্থানের সময় প্রেসিডেন্ট বাইডেন সৌদি ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গেও বৈঠক করবেন। তবে ২০১৮ সালে তুরস্কে মার্কিন সংবাদমাধ্যম ওয়াশিংটন পোস্টের কলামিস্ট এবং সৌদি রাজপরিবারের কঠোর সমালোচক জামাল খাশোগির হত্যাকাণ্ডে সম্পৃক্ততার দায় মার্কিন গোয়েন্দারা সরাসরি মোহাম্মদ বিন সালমানের ওপর চাপায়। এর জেরে সৌদিকে ‘পারিয়াহ’ বা অস্পৃশ্য রাষ্ট্রে পরিণত করা হয়।

২০১৮ সালের ২ অক্টোবর ইস্তাম্বুলের সৌদি কনস্যুলেটের ভেতরে দেশটির এজেন্টদের হাতে হত্যাকাণ্ডের শিকার হন খাশোগি। নিজের বিয়ের জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র তুলতে তিনি সেখানে গিয়েছিলেন। ৫৯ বছর বয়সী এই সাংবাদিক ছিলেন সৌদি সরকারের বিভিন্ন নীতি ও রাজপরিবারের কঠোর সমালোচক।

সৌদি কর্মকর্তারা প্রাথমিকভাবে দাবি করেছিলেন, খাশোগি সৌদি কনস্যুলেট ভবন ছেড়ে গেছেন, কিন্তু জনসাধারণের চাপের কারণে পরে তাকে হত্যার কথা স্বীকার করে দেশটি। ২০১৯ সালে জাতিসংঘের একটি তদন্তে বলা হয়, খাশোগির হত্যা একটি ‘পূর্বপরিকল্পিত বিচারবহির্ভূত হত্যাকাণ্ড’।

এদিকে জুলাইয়ের আসন্ন এই সফরের সময় প্রেসিডেন্ট বাইডেন সৌদির তেল উৎপাদন ব্যাপকভাবে বাড়ানোর চেষ্টা করবেন বলে আশা করা হচ্ছে। কারণ রাশিয়া ইউক্রেন যুদ্ধের প্রভাব যুক্তরাষ্ট্রেও বেশ ভালোভাবে পড়েছে এবং পেট্রোলের দাম কমানোর উপায় খুঁজে বের করার চেষ্টা করছেন জো বাইডেন।

এছাড়া যুক্তরাষ্ট্রে মুদ্রাস্ফীতি বেড়ে যাওয়ায় তার প্রভাব আসন্ন মধ্যবর্তী কংগ্রেস নির্বাচনে ডেমোক্র্যাটিক পাার্টির ফলাফলে পড়তে পারে বলে আশঙ্কা রয়েছে।

এক বিবৃতিতে হোয়াইট হাউসের প্রেস সেক্রেটারি কারিন জিন-পিয়েরে বলেছেন, জেদ্দায় অবস্থানকালীন প্রেসিডেন্ট বাইডেন উপসাগরীয় সহযোগিতা পরিষদ (জিসিসি) এবং মিশর, ইরাক ও জর্ডানকে নিয়ে একটি বৈঠকে যোগ দেবেন।

তিনি আরও বলেন, সৌদি নেতৃত্বের সঙ্গে বৈঠকের সময় মার্কিন প্রেসিডেন্ট ‘বিভিন্ন দ্বিপাক্ষিক, আঞ্চলিক এবং বৈশ্বিক বিষয় নিয়ে আলোচনা করবেন’। এছাড়া সেখানে ইয়েমেনে হুথি বিদ্রোহীদের বিরুদ্ধে চলমান যুদ্ধ নিয়েও আলোচনা হবে।

কারিন বলেন, জো বাইডেন ‘নতুন ও প্রতিশ্রুতিবদ্ধ অবকাঠামো এবং জলবায়ু পরিবর্তন রোধে উদ্যোগ-সহ আঞ্চলিক অর্থনৈতিক ও নিরাপত্তা সহযোগিতা সম্প্রসারণের উপায় নিয়েও আলোচনা করবেন। একইসঙ্গে ইরানের হুমকি রোধ করা, মানবাধিকারের অগ্রগতি এবং বিশ্বব্যাপী জ্বালানি ও খাদ্য নিরাপত্তা নিশ্চিত করার বিষয়টিও আলোচনায় স্থান পাবে।’

পরে কারিন জিন-পিয়েরে সৌদি ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে প্রেসিডেন্ট বাইডেনের বৈঠকের বিষয়ে সিনিয়র এক মার্কিন কর্মকর্তার মন্তব্য নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, ‘হ্যাঁ, আমরা আশা করতে পারি প্রেসিডেন্ট বাইডেন ক্রাউন প্রিন্সের সঙ্গে দেখা করবেন।’

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ২:১৮ অপরাহ্ণ | বুধবার, ১৫ জুন ২০২২

nypratidin.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর...

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০৩১  

Editor : Naem Nizam

Executive Editor : Lovlu Ansar