সোমবার ১৫ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৩১শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

৩৬তম ফোবানা সম্মেলন নিয়ে পাল্টাপাল্টি চলছেই

প্রতিদিন ডেস্ক   |   মঙ্গলবার, ২১ জুন ২০২২ | প্রিন্ট  

৩৬তম ফোবানা সম্মেলন নিয়ে পাল্টাপাল্টি চলছেই

আসন্ন ৩৬তম ফোবানা সম্মেলন নিয়ে পাল্টাপাল্টি চলছেই। এবার মূল কমিটির চেয়ারম্যান রেহান রেজা, ভাইস চেয়ারম্যান এম মওলা দিলু, এক্সিকিউটিভ সেক্রেটারি মাসুদ রব চৌধুরী ও জয়েন্ট সেক্রেটারি নাহিদুল খান সাহেলকে ফোবানা থেকে বহিষ্কার করে লস এঞ্জেলেসে সম্মেলনের ডাক দিয়েছে আতিকুর রহমানের নেতৃত্বে নবগঠিত কমিটি। তারা রেহান রেজার নেতৃত্বাধীন অংশের তরফে শিকাগোতে সম্মেলন আয়োজনের যে ঘোষণা দেওয়া হয়েছে সেটিকেও বাতিল বলে ঘোষণা করেছে। এডহক কমিটির তরফে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব কথা বলা হয়।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, গত ১ জুন ফোবানার সর্বোচ্চ নীতি নির্ধারণী ফোরাম এজিএম’র দুই তৃতীয়াংশ সদস্যের মতামতের ভিত্তিতে এবং ১৩ জুন অনুষ্ঠিত এক্সিকিউটিভ কমিটির সভায় এই সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত করা হয়।

সভায় গৃহীত সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, ফেডারেশন অব বাংলাদেশি এসোসিয়েশন ইন নর্থ আমেরিকা ফোবানা’র মূল কমিটির চেয়ারম্যান রেহান রেজা ও এক্সেকিউটিভ সেক্রেটারি মাসুদ রব চৌধুরীকে গুরুতর সাংগঠনিক অপকর্মের জন্য সংগঠন থেকে আজীবনের বহিষ্কার করা হয়। সেইসঙ্গে মূল কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান দিলু এবং জয়েন্ট সেক্রেটারি সাহেলকেও নানা অনৈতিক ও অসাংগঠনিক কর্মকান্ডের জন্য সংগঠন থেকে পাঁচ বছরের জন্য বহিষ্কার করা হয়েছে । চলতি বছরের সেপ্টেম্বর মাসে শিকাগোতে সম্মেলন আয়োজনের যে ঘোষণা দিয়েছে আরেক পক্ষ তা বাতিল করে লস এঞ্জেলেসে আয়োজন করার সিদ্ধান্ত হয়।

আতিকুর রহমানের নেতৃত্বাধীন নবগঠিত এডহক কমিটি মূল কমিটির বহিষ্কৃত চেয়ারম্যান রেহান রেজার বিরুদ্ধে বেশ কিছু অভিযোগ এনেছে। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য কয়েকটি হলো ২০১৯ সালে সকল চেয়ারম্যানের মতামত ও অনুরোধ উপেক্ষা করে রেহান রেজা নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে পরাজিত হওয়ার পর থেকে বিগত বছরগুলোতে সংগঠনের ভেতর বিভক্তি সৃষ্টি, স্বাধীনতা বিরোধীদের সাথে জোট বেঁধে গত বছর মুজিববর্ষ ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর সম্মেলন বানচালের ষড়যন্ত্র, সিনিয়র নেতৃবৃন্দের বিরুদ্ধে বিষোধাগার, সংগঠনের কার্যক্রম পরিচলানায় বাধা প্রদান, ফোবানাকে দু’ভাগ করার প্রকাশ্য ঘোষণা, চেয়ারম্যান মনোনীত হওয়ার পর থেকে সংগঠনের ভিতর নোংরা গ্রুপিং সৃষ্টি করে পুরনো পরীক্ষিত নেতাদেরকে বাদ দেয়ার ষড়যন্ত্র, অন্যায় ও অবৈধভাবে সদস্যদেরকে বাদ দেয়া, উত্তর আমেরিকার জনপ্রিয় সংগঠগুলোকে বাদ দেয়ার নীলনকশা, ফোবানাকে কর্পোরেট সংগঠনে পরিচালনা করার অপচেষ্টা, চেয়ারম্যানের শপথ ভঙ্গ করে পরবর্তী নির্বাচনে এক চেয়ারম্যান প্রার্থীর পক্ষে প্রচারণা, চেয়ারম্যান হিসাবে সংগঠনকে নেতৃত্ব দিতে ব্যর্থতার পরিচয় দিয়ে অসাধু এক্সিকিউটিভ সেক্রেটারির প্রেসক্রিপশনে সংগঠন পরিচালনা করা।

বহিষ্কৃত এক্সিকিউটিভ সেক্রেটারি মাসুদ রব চৌধুরীর বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগগুলোর মধ্যে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের সর্বোচ্চ আদালতে সাজাভুক্ত আসামী হওয়া সত্বেও তিনি এ তথ্য গোপন করে ফোবানার ট্রেজারার ও সেক্রেটারি পদে নির্বাচন করা, ট্রেজারার নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে ৩৬ বছরেরপুরনো সংগঠনটিকে বিভক্ত করার নোংরা ষড়যন্ত্রের নেতৃত্বে লিপ্ত হওয়া, বিগত তিন বছর ধারাবাহিকভাবে সংগঠনের নির্বাহী কমিটির পাশাপাশি ফোবানার ‘লাইক মাইন্ডেড গ্রুপ’ করে আরেকটি গ্রুপ তৈরি করে অবৈধ ও অসাংগঠনিকভাবে ফোবানার প্যারালাল কার্যক্রম পরিচালনা করা, ফোবানার প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যানসহ অধিকাংশ সাবেক চেয়ারম্যান ও সদস্যদেরকে বিভিন্ন সময়ে অপমান অপদস্ত করা, সেক্রেটারী থাকা অবস্থায় চেয়ারম্যানের রুলিং অমান্য করে নিজের খেয়ালখুশি মতো ফোবানার কার্যক্রম পরিচালনা, চেয়ারম্যানের অনুমতি ছাড়া ফোবানার ওয়েবসাইট ও সোস্যাল মিডিয়া একাউন্টের পাসওয়ার্ড পরিবর্তন করে ফোবানার সমস্ত ক্রেডেন্সিয়াল হাইজ্যাক করা, অপছন্দের সংগঠন ও নেতৃবৃন্দকে বাদ দেয়া ও ইমেইলে ব্লক করা, ফোবানার নির্বাহী কমিটির মিটিংয়ের তথ্য ফাঁস করা যা অসাংগঠনিক ও সংবিধান পরিপন্থী, ভুঁয়া সংগঠন বানিয়ে ফোবানায় অর্ন্তভুক্তি করে দল ভারী করে ক্ষমতা কুক্ষিগত করার নীল নকশা প্রণয়ন করা ইত্যাদি।

আর ভাইস চেয়ারম্যান এম মওলা দিলুর বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগগুলোর মধ্যে রয়েছে রাষ্ট্রীয় আদালতে সাজাভুক্ত কয়েকজন ব্যক্তিসহ নানা অপশক্তির ইশারায় ফোবানার সিনিয়র নেতৃবৃন্দের বিরুদ্ধে বিষোধাগার, নির্বাহী কমিটির বিভিন্ন সভায় সিনিয়র নেতৃবৃন্দের নাম ধরে কটূক্তি করা, ক্ষমতার অপব্যবহার করে সরাসরি ভোটে নির্বাচিত সাব কমিটির কর্মকর্তাদেরকে অসাংগঠনিক পন্থায় এককভাবে দায়িত্ব থেকে অব্যহতি জানিয়ে সাধারণ সদস্যদের কাছে ইমেইল প্রদানসহ নানা অপপ্রচার।

এছাড়া জয়েন্ট এক্সেকিউটিভ সেক্রেটারি নাহিদুল খান সাহেলের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগগুলোর মধ্যে রয়েছে ২০২১ সালের ফোবানা সম্মেলনে স্বাধীনতার সূবর্ণজয়ন্তী ও মুজিববর্ষ পালনে বাধা প্রদান, কোনো সংগঠন না থাকা সত্বেও অর্থের বিনিময়ে ২০১৮ সালে ফোবানা সম্মেলনের সদস্য সচিব হয়ে আজ অবদি ফোবানায় সংযুক্ত থাকা ও মেম্বারশিপ কমিটির চেয়ারম্যান পদ নিয়ে বৈধ সংগঠনগুলোকে ফোবানা থেকে বাদ দেওয়ার হুমকি, ২০২৩ সালে অনুষ্ঠিতব্য ফোবানা সম্মেলন বাতিলের হুমকি, সম্প্রতিক সময়ে নির্বাহী কমিটির সভা পরিচালনা করতে গিয়ে সাবেক দু’জন চেয়ারম্যানের মাইক বন্ধ করে ভার্চুয়াল সভা থেকে বের করে দেয়া ইত্যাদি।

এদিকে, মূল কমিটির চেয়ারম্যান রেহান রেজার নেতৃত্বে শিকাগোতে ৩৬তম সম্মেলনের যে উদ্যোগ নেয়া হয়েছে তাতেও নানা অনিয়ম দুর্নীতি হয়েছে বলেও অভিযোগ তুলেছে আতিকুর রহমানের নেতৃত্বাধীন এডহক কমিটি। তাদের দাবি, স্বাগতিক কমিটি ফোবানার সমস্ত রেকর্ড ভঙ্গ করে মাত্র ৬৫০ জনের ধারণক্ষমতা সম্পন্ন অডিটরিয়ামে ফোবানা সম্মেলন আয়োজনের জন্য প্রায় আড়াই লক্ষ ডলারের বাজেট ধরে বেপোরোয়া চাঁদাবাজি চলছে। এসব অভিযোগে শিকাগোতে ডাকা সম্মেলন বাতিল করে লস এঞ্জেলেসে তা আয়োজনের জন্য এর ছয়টি সংগঠনকে যৌথভাবে সম্মেলন আয়োজনের দায়িত্ব প্রদান করা হয়েছে বলে সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে। আগামী সেপ্টেম্বর ২, ৩ ও ৪ তারিখে (লেবার ডে উইকেন্ড) লস এঞ্জেলেসের হোটেল মেরিয়ট বারব্যাংকে সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। সম্মেলন আয়োজক কমিটির সভাপতি জাহিদ হোসেন পিন্টু ২১৩-৮০৪-০৫২৩, কনভেনার আবুল ইব্রাহিম ২১৩-৯৪৮-৭৯০৮, সদস্য সচিব সৈয়দ এম হোসেন বাবু ৩২৩-৬৩৫-৮৯৮৩ও কোষাধ্যক্ষ দেওয়ান জমির পলাশ ৯১৩-৪৮৮-৬০২১।

সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, ফোবানা নিয়ে বিভ্রান্তির কোনো অবকাশ নেই। আইনগত ও সাংগঠনিকভাবে আতিকুর রহমান ও ড. রফিক খানের নেতৃত্বাধীন ফোবানাই হচ্ছে ফোবানার মূল সংগঠন বলে এতে দাবি করা হয়েছে। ফোবানা সংক্রান্ত যেকোন তথ্যের জন্য চেয়ারম্যান আতিকুর রহমান ৯৫৪-৮১৮-২৯৭০ ও এক্সিকিউটিভ সেক্রেটারি ড. রফিক খান ২৮১-৪৬০-৯১০১ অথবা িি.িভড়নধহধ.রহভড় এ যোগাযোগ করার জন্যও বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ২:১৫ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, ২১ জুন ২০২২

nypratidin.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর...

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

রবি সোম মঙ্গল বু বৃহ শুক্র শনি
 
১০১১১৩
১৫১৬১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
৩০৩১  

Editor : Naem Nizam

Executive Editor : Lovlu Ansar