শনিবার ২৫শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১১ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ভিন্ন মাত্রায় নিউইয়র্কে ফাল্গুন উৎসব উদযাপিত

যুক্তরাষ্ট্র প্রতিনিধি   |   শনিবার, ১৮ মার্চ ২০২৩ | প্রিন্ট  

ভিন্ন মাত্রায় নিউইয়র্কে ফাল্গুন উৎসব উদযাপিত

“একটুকু ছোঁয়া লাগে, একটুকু কথা শুনি তাই দিয়ে মনে মনে রচি মম ফাল্গুনী”-কবিগুরুর লেখা গানের এই অনবদ্য পংক্তি দিয়ে পলাশ ফুলের ব্যানারে শুক্রবার রিমঝিম বৃষ্টিভেজা সন্ধ্যাটা যেন হয়ে উঠেছিলো অপরূপা। শীতের সন্ধ্যায় বাঁধভাঙা “ফাল্গুনি” উৎসবে মেতেছিল চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় এলামনাই এসোসিয়েশন, উত্তর আমেরিকার সদস্যরা। গান, কবিতা, আলোচনা, আড্ডা, নাচে মুখর হয়ে উঠেছিলো নিউইয়র্ক সিটির জ্যাকসন হাইটস্ -এর একটি পার্টি হল। পুরো হলরুম জুড়ে এলামনাই কেসি মঙ এর করা চমৎকার ফাল্গুনের ব্যানার এবং কবিতার পোষ্টার অন্য রকম এক কাব্যিক আবহ তৈরী করেছিলো। নিউইয়র্কের বিভিন্ন এলাকায় বসবাসকারী এলামনাইরা, তাঁদের পরিবার পরিজন এবং কমিউনিটির বিশিষ্টজনের উপস্থিতি এক আনন্দঘন পরিবেশের সৃষ্টি করে।

অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় এলামনাই এসোসিয়েশনের সভাপতি সাবিনা শারমিন নিহার। এরপর শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন প্রাক্তন সভাপতি ও উপদেষ্টা পারভেজ কাজী, প্রাক্তন সভাপতি ও উপদেষ্টা মুহাম্মদ আবদুল আজিজ নঈমী, সিনিয়র সহ সভাপতি অধ্যাপক গোলাম মোহাম্মদ মুহিত, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মীর কাদের রাসেল, সাংস্কৃতিক সম্পাদক অনুপ দাশ।

তাঁরা সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে সবার প্রতি অশেষ কৃতজ্ঞতা জানান। অনুষ্ঠানে শুদ্ধ সুর, শুদ্ধ সংগীতে দর্শকদের মুগ্ধ করে রাখেন নতুন প্রজন্মের প্রতিশ্রুতিশীল শিল্পী আলভান চৌধুরী, জারীন মাইশা, রুদ্রনীল দাশ রুপাই এবং উদীপ্ত চৌধুরী। রুচিশীল বাংলা গান যে সবসময় আদরণীয় হয়ে থাকবে এই প্রবাসেও তা এ প্রজন্মের শিল্পীদের কণ্ঠেই দর্শক শ্রোতারা বুঝতে পারেন এবং আশ্বস্ত হন। তাঁদের পরিশীলিত গানে সবার অন্তর ছুঁয়ে যায়। গীতিকার, সুরকার, চিত্রশিল্পী, মুক্তিযোদ্ধা তাজুল ইমাম তাঁর সুর এবং লেখা জনপ্রিয় সব গান এবং চমৎকার কথায় সবাইকে ফিরিয়ে নিয়ে যান বিশ্ববিদ্যালয়ের ফেলে আসা শ্রেষ্ঠ সময়গুলোতে। এ সময় পিনপতন নীরবতায় দর্শক-শ্রোতা তাঁর পরিবেশনা উপভোগ করেন।

সাংস্কৃতিক সম্পাদক অনুপ দাশ, এলামনাই শিবব্রত দে বাবলু, বিপা’র সভাপতি নিলোফার জাহান, অতিথি শিল্পী ক্রিস্টিনা লিপি রোজারিও এবং মৃদুল আহমেদের গান পুরো অনুষ্ঠানকে নিয়ে যায় অন্য এক মাত্রায়। তবলায় সঙ্গত করেন পিনাক পাণি গোস্বামী। শব্দে ছিলেন মোহাম্মদ হারুন। কার্যকরী কমিটির সদস্য ফারহানা আক্তার, এলামনাই পরিবারের সদস্য শিলা মুহিত এবং এলি বড়–য়ার কবিতা আবৃত্তি সবাইকে মুগ্ধ করে। অনুষ্ঠান সঞ্চালনায় ছিলেন সাবিনা শারমিন নিহার। প্রবাসের শত ব্যস্ততার মাঝে, বৈরী আবহাওয়া উপেক্ষা করে এলামনাই জাহাঙ্গীর আলম পরিবার এবং মীর কাদের রাসেলের পরিবারের আনা বাংলার ঐতিহ্যবাহী সুস্বাদু পিঠা ফাল্গুন উৎসবের পরিপূর্ণতা দেয়।

অনুষ্ঠানের শেষে পরিবেশন করা হয় সুস্বাদু খিচুরী আর মুরগীর মাংস। সব মিলিয়ে এক অসাধারণ সন্ধ্যা কাটালেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় এলামনাই এসোসিয়েশন আয়োজিত ফাল্গুনি উৎসবের আমন্ত্রিত সব অতিথিরা।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ৪:৪০ অপরাহ্ণ | শনিবার, ১৮ মার্চ ২০২৩

nypratidin.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০৩১  

Editor : Naem Nizam

Executive Editor : Lovlu Ansar