শনিবার ২২শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৮ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

জামিনে মুক্ত হয়েই ‘স্বৈরাচারের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের’ বার্তা দিলেন কেজরিওয়াল

বিশ্ব ডেস্ক   |   শনিবার, ১১ মে ২০২৪ | প্রিন্ট  

জামিনে মুক্ত হয়েই ‘স্বৈরাচারের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের’ বার্তা দিলেন কেজরিওয়াল

দুর্নীতির মামলায় ৫০ দিন কারাগারে থাকার পর মুক্তি পেয়েছেন ভারতের দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল। শুক্রবার (১০ মে) সন্ধ্যায় দেশটির তিহার কারাগার থেকে ছাড়া পান তিনি। এদিকে জেল থেকে মুক্তির পরপরই স্বৈরাচারের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের বার্তা দিয়েছেন কেজরিওয়াল। তিনি বলেছেন, স্বৈরাচারের বিরুদ্ধে লড়াই করতে হবে। শনিবার (১১ মে) এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, কথিত মদ নীতি কেলেঙ্কারির সাথে জড়িত দুর্নীতির অভিযোগে ৫০ দিন করাগারে থাকার পরে অরবিন্দ কেজরিওয়াল শুক্রবার (১০ মে) সন্ধ্যায় দিল্লির তিহার জেল থেকে মুক্তি পেয়েছেন। এর আগে একইদিন দুপুরে দেশটির সুপ্রিম কোর্টে অন্তর্বর্তীকালীন জামিন পান তিনি।

শীর্ষ আদালতের এই রায়ের ফলে আগামী ১ জুন অর্থাৎ লোকসভা ভোটের শেষ দফা পর্যন্ত জেলের বাইরে থাকবেন কেজরিওয়াল। দিল্লির আবগারি নীতিকাণ্ডে গত ২১ মার্চ তাকে গ্রেপ্তার করেছিল ভারতের কেন্দ্রীয় অর্থ মন্ত্রণালয়ের তদন্তকারী সংস্থা এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি)।

ভারতে চলছে লোকসভা নির্বাচন। ইতোমধ্যেই তৃতীয় দফার ভোটগ্রহণও সম্পন্ন হয়েছে। আর এর মাঝেই আম আদমি পার্টির প্রধান এই নেতার মুক্তির অর্থ হলো তিনি এখন তার দল এএপি এবং বিরোধী ইন্ডিয়া ব্লকের নির্বাচনী প্রচারণাতেও অংশ নিতে পারবেন। চলমান নির্বাচনে দিল্লির সাতটি আসনে আগামী ২৫ মে ভোট অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

এদিন তিহার জেল থেকে বেরিয়ে বাড়ির পথে রওনা দেন কেজরিওয়াল। মাঝে গাড়ি থেকেই ‘ভারত মাতা কী জয়’ ধ্বনি দিতে দেখা যায় তাকে। শোনা যায়, ‘ইনকিলাব জিন্দাবাদ’, ‘বন্দে মাতরম’ স্লোগানও।

জেল ছাড়ার পর নিজের প্রথম প্রকাশ্য মন্তব্যে কেজরিওয়াল ‘শীর্ষ আদালতের সকল বিচারককে’ ধন্যবাদ জানান এবং আগামী ২৫ মে দিল্লিতে নির্বাচনের দিকে নজর রেখে ভোটারদের ‘স্বৈরাচারের হাত থেকে দেশকে বাঁচানোর’ আহ্বান জানান।

তিনি বলেন, ‘আমি আপনাদের সবাইকে ধন্যবাদ জানাতে চাই… আপনারা আমাকে আপনাদের আশীর্বাদ দিয়েছেন। আমি সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতিদের ধন্যবাদ জানাতে চাই, তাদের কারণেই আমি আপনাদের সামনে আছি। আমাদের দেশকে স্বৈরাচারের হাত থেকে বাঁচাতে হবে।…’

অরবিন্দ কেজরিওয়াল বলেন, আমি বলেছিলাম তাড়াতাড়ি আসব, এসে গেছি। ৪ হাজার বছরের পুরনো দেশ ভারত মহান দেশ। কিন্তু যখনই এই দেশে কেউ একনায়কতন্ত্র কায়েমের চেষ্টা করেছে, মানুষ তাদের কখনোই ছাড় দেয়নি। আজ দেশ সেই পরিস্থিতির মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে।

কেজরি বলেন, ‘আমি শরীর, মন, সব দিক দিয়ে তার বিরুদ্ধে লড়ছি। তবে ১৪০ কোটি মানুষকে মিলে এই নৈরাজ্যকে হারাতে হবে। আমি মানুষের কাছে আবেদন করব, আমাদের সকলকে মিলে এই দেশকে বাঁচাতে হবে।’

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ২:০৯ অপরাহ্ণ | শনিবার, ১১ মে ২০২৪

nypratidin.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০  

Editor : Naem Nizam

Executive Editor : Lovlu Ansar