বুধবার ১৭ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ২রা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নিউইয়র্কে ড মোমেন : বাংলাদেশের অর্থনীতি ভালো অবস্থানে রয়েছে

লাবলু আনসার, যুক্তরাষ্ট্র   |   সোমবার, ০১ আগস্ট ২০২২ | প্রিন্ট  

নিউইয়র্কে ড মোমেন : বাংলাদেশের অর্থনীতি ভালো অবস্থানে রয়েছে

তুলনামূলকভাবে বাংলাদেশের অর্থনীতি ভালো অবস্থানে রয়েছে। ৩১ জুলাই সকালে এমিরেট এয়ারলাইন্সে জেএফকে এয়ারপোর্টে অবতরনের পর বলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড এ কে মোমেন। জাতিসংঘ সদরদফতরে পরমাণু বিস্তাররোধ ও নিরস্ত্রীকরণ চুক্তির আওতাভূক্ত দেশগুলোর উচ্চ পর্যায়ের বৈঠকে অংশ নিতে যুক্তরাষ্ট্র সফরে এসেছেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একে আবদুল মোমেন।

তাকে স্বাগত জানাতে বিমানবন্দরে উপস্থিত হয়েছিলেন জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি এম এ মুহিত,ওয়াশিংটনে
যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত শহিদুল ইসলাম, আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সেক্রেটারি আইরিন পারভিন, বঙ্গবন্ধু আইনজীবী পরিষদের নেতা মোর্শেদা জামান. আশরাফুজ্যুজামান, যুক্তরাষ্ট্রে বাংলাদেশি মালিকানাধীন ওয়াশিংটন ইউনিভার্সিটি অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজির চ্যান্সেলর আবুবকর হানিপ। রবিবার সকালে বিমানবন্দরে পৌঁছানোর পর পররাষ্ট্রমন্ত্রীকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান তারা। এছাড়া দলীয় নেতা-কর্মীদের পক্ষ থেকেও জানানো হয় ফুলেল শুভেচ্ছা।

বিমানবন্দের এ সংবাদদাতার সাথে কথা বলেন ড. একে আবদুল মোমেন। এসময় তিনি বাংলাদেশের অর্থনীতি, যুক্তরাষ্ট্রের অর্থনীতির বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন।

সারা দুনিয়াজুড়েই এখন মুদ্রাস্ফীতি চলছে উল্লেখ করে ড. মোমেন বলেন, ইউক্রেন যুদ্ধ আর তার জের ধরে বিভিন্ন ধরনের নিষেধাজ্ঞায় সাপ্লাইচেন বন্ধ হওয়ার কারণেই এমনটা ঘটছে। ইরাক যুদ্ধ, কুয়েত যুদ্ধ, আফগানিস্তানযুদ্ধসহ বিভিন্ন যুদ্ধের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, এসব যুদ্ধের চেয়ে ইউক্রেন যুদ্ধের প্রভাব সারা বিশ্বে অনে বেশি পড়েছে।

যুক্তরাষ্ট্রের মুল্যস্ফীতির কথা উল্লেখ করে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, এর তুলনায় আমাদের দেশ অনেক ভালো অবস্থানে রয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র যে ডিম এক ডলারে কেনা যেতো তা এখন ছয় ডলারে কিনতে হয়। সে তুলনায় বাংলাদেশের মুদ্রাস্ফীতি এখনো ৭ শতাংশের নিচে রয়েছে, বলেন তিনি।

Dr. Momen in NY

কেউ কেউ অর্থনীতির বিষয়টিতে অকারণেই অশ্রদ্ধা সৃষ্টি করছেন। এদেরকে জ্ঞানপাপী বলেও উল্লেখ করেন ড. মোমেন। রিজার্ভ নিয়ে তারা মিথ্যা ছড়াচ্ছেন উল্লেখ করেন তিনি বলেন, আমাদের ৪০ বিলিয়ন ডলারের রিজার্ভ রয়েছে। এই কয়েক বছর আগেও আমরা ৩-৪ বিলিয়ন ডলার নিয়ে চলতাম। এখন আমাদের ৪০ বিলিয়ন ডলার রয়েছে। সুতরাং ভয়ের কিছু নেই।

গ্যাস সাপ্লাইয়ে কোনো সমস্যা নেই এমন মন্তব্য কের সরকার আগে ভাগে সাশ্রয়ের পথে যাচ্ছে এমনটা উল্লেখ করেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী। তিনি বলেন, সাশ্রয়ী হতে সকলকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে, যাতে ভবিষ্যতে সঙ্কট না হয়।

অপর এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, কোনো দেশই বেহেস্ত না, আমাদের দেশেও কিছু দুর্বলতা রয়েছে। কিছু অপরিপক্কতা রয়েছে। ভালো-মন্দ মিলিয়েই দেশ। তবে বাংলাদেশের জন্য ভালোর অংশটিই সবচেয়ে বেশি।

বাংলাদেশ পরমানু বিস্তার রোধের পক্ষে। আর তা নিয়ে জাতিসংঘের উচ্চ পর্যায়ের বৈঠকে অংশ নিতে নিউইয়র্ক এসেছেন বলে জানান পররাষ্ট্রমন্ত্রী। সফর সম্পর্কে বিস্তারিত জানাতে তিনি বলেন, জাতিসংঘের এখন তার প্রধান কাজ। এখানে বৈঠকের পর আগামী ৩ আগস্ট থেকে আসিয়ান সম্মেলন হতে যাচ্ছে কম্বোডিয়ায়। তাতে যোগ দিতে যুক্তরাষ্ট্র থেকে সেখা যাবেন। ওই সম্মেলনে রোহিঙ্গা ইস্যু নিয়ে কথা হবে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, আসিয়ানে বাংলাদেশ গভীরতর সম্পর্ক স্থাপনে সচেষ্ট।

সব মিলিয়ে ব্যস্ত সময়ের কথা উল্লেখ করে পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, এইসব কর্মসূচি শেষে দেশে ফিরবেন। চিনা পররাষ্ট্রমন্ত্রী বাংলাদেশ সফর করবেন বলেও জানান তিনি। সে কারণেই দ্রুত তাকে দেশে ফিরতে হবে।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ১১:৪৩ পূর্বাহ্ণ | সোমবার, ০১ আগস্ট ২০২২

nypratidin.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর...

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

রবি সোম মঙ্গল বু বৃহ শুক্র শনি
 
১০১১১৩
১৫১৬১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
৩০৩১  

Editor : Naem Nizam

Executive Editor : Lovlu Ansar