সোমবার ১৫ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৩১শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিজেপির নেত্রী নুপুর শর্মার বিরুদ্ধে মামলা

বিশ্ব ডেস্ক   |   বৃহস্পতিবার, ০৯ জুন ২০২২ | প্রিন্ট  

বিজেপির নেত্রী নুপুর শর্মার বিরুদ্ধে মামলা

মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) কে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্যের দুই সপ্তাহ পর ভারতের ক্ষমতাসীন রাজনৈতিক দল ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) বরখাস্তকৃত মুখপাত্র নুপুর শর্মার বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। সমাজের শান্তি বিনষ্ট, অস্থিতিশীলতা তৈরি এবং বিদ্বেষ ছড়ানোর দায়ে বিজেপির এই নেতা ছাড়াও আরও কয়েকজনের বিরুদ্ধে বৃহস্পতিবার দিল্লি পুলিশ এই মামলা দায়ের করেছে। খবর এনডিটিভি।
গণমাধ্যমটির খবরে বলা হয়েছে, বিজেপির সাবেক মুখপাত্র নুপুর শর্মা, একজন সাংবাদিক, সামাজিক যোগােযোগমাধ্যমের কয়েকজন ব্যবহারকারী এবং ধর্মীয় বিভিন্ন সংগঠনের সদস্যদের বিরুদ্ধে দুটি এফআইআর দায়ের করা হয়েছে।

বিজেপির বরখাস্তকৃত মুখপাত্র নুপুর শর্মা এবং দলটির দিল্লির গণমাধ্যম শাখার বহিষ্কার হওয়া প্রধান নবীন কুমার জিন্দালের নবীকে নিয়ে আপত্তিকর মন্তব্যের পর মুসলিম বিশ্বে— বিশেষ করে মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোর প্রচণ্ড সমালোচনা ও কূটনৈতিক চাপের মুখে পুলিশ এই পদক্ষেপ নিয়েছে।

নুপুর শর্মা উত্তর প্রদেশের জ্ঞানবাপি মসজিদ ইস্যুতে গত মাসের শেষের দিকে টেলিভিশনের এক টকশোতে এবং জিন্দাল টুইটারে নবীকে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্য করেছিলেন। তাদের এই মন্তব্যের পর দেশে-বিদেশে প্রচণ্ড সমালোচনার মুখে পড়ে ভারতের কট্টর হিন্দুত্ববাদী বিজেপি নেতৃত্বাধীন নরেন্দ্র মোদির সরকার।

ভারতে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম এবং টেলিভিশনে প্রায়ই এমন বিতর্কিত মন্তব্য দেখা যায়। এর মাঝেই পুলিশ দেরীতে পদক্ষেপ নেওয়ায় অনেকেই প্রশ্ন তুলেছেন। আর এই পদক্ষেপ এমন এক সময় নেওয়া হলো যখন সৌদি আরব, কাতার, কুয়েত, ইরানসহ প্রায় ১৬টি দেশ বিজেপির দুই নেতার মন্তব্যের জেরে ভারতের তীব্র সমালোচনা এবং নিন্দা জানিয়েছে। কূটনৈতিক চাপের মুখেই কী ভারত দুই সপ্তাহ পর বিজেপি নেতাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করল, সেই প্রশ্নও করছেন অনেকে।

এনডিটিভি বলছে, দিল্লি পুলিশের বিশেষ সাইবার ইউনিট কারও অভিযোগের ভিত্তিতে নাকি স্বত:প্রণোদিত হয়ে এই মামলা দায়ের করেছে সেটি এখনও পরিষ্কার নয়। তবে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বিদ্বেষমূলক বার্তা এবং সহিংসতার উসকানির বিষয়ে নিয়মিত নজরদারি করা হচ্ছে বলে আশ্বাস দিয়েছে পুলিশ।

মধ্যপ্রাচ্যের কয়েকটি দেশ ভারতে ক্রমবর্ধমান চরমপন্থা ও ধর্মীয় বিদ্বেষের নিন্দা জানাতে গত কয়েক দিন ভারতীয় রাষ্ট্রদূতদের তলব করে। এর মধ্যে কয়েকটি দেশ নবীকে নিয়ে বিজেপি নেতাদের বিতর্কিত মন্তব্যের দায়ে ভারতকে প্রকাশ্যে ক্ষমা চাওয়ারও দাবি জানিয়েছে।

পুলিশের দায়েরকৃত মামলায় আসামি হিসেবে যাদের নাম উল্লেখ করা হয়েছে, তারা হলেন— বিজেপির দিল্লির গণমাধ্যম শাখার বহিষ্কার হওয়া প্রধান নবীন কুমার জিন্দাল, পিস পার্টির প্রধান মুখপাত্র শাদব চৌহান, সাংবাদিক সাবা নাকভি, হিন্দু মহাসভার পদধারী নেতা শাকুন পাণ্ডে, রাজস্থানের মাওলানা মুফতি নাদিম, আব্দুর রেহমান, অনীল কুমার মীনা এবং গুলজার আনসারি।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ১২:৫১ অপরাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, ০৯ জুন ২০২২

nypratidin.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর...

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

রবি সোম মঙ্গল বু বৃহ শুক্র শনি
 
১০১১১৩
১৫১৬১৯২০
২১২২২৩২৪২৫২৬২৭
৩০৩১  

Editor : Naem Nizam

Executive Editor : Lovlu Ansar