বুধবার ২৯শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১৫ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

জাপানে ‌`অনেকটাই নীরব’ জীবনযাপন করছেন আলিবাবার জ্যাক মা

বিশ্ব ডেস্ক   |   বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২ | প্রিন্ট  

জাপানে ‌`অনেকটাই নীরব’ জীবনযাপন করছেন আলিবাবার জ্যাক মা

চীন সরকারের ব্যাংকিং নীতি নিয়ে ২০২০ সালে সমালোচনামূলক বক্তব্য রেখেছিলেন চাইনিজ বহুজাতিক প্রতিষ্ঠান আলিবাবার প্রতিষ্ঠাতা জ্যাক মা। এরপর হঠাৎ করেই জনসম্মুখ থেকে হারিয়ে যান এই বিলিয়নিয়ার। খবর দ্য গার্ডিয়ান।

ধারণা করা হচ্ছিল, সরকারের নীতির সমালোচনায় করায় তাকে হয়তবা গ্রেপ্তার করা হয়েছে। পরবর্তীতে জানা যায় তিনি গ্রেপ্তার ও অন্যান্য ঝামেলা এড়াতে চীন ছেড়ে অন্যত্র চলে গেছেন। অবশ্য ঠিক কোথায় আছেন সেটি জানা যাচ্ছিল না। তবে অবশেষে জানা গেল জ্যাক মার অবস্থান।

যুক্তরাজ্যভিত্তিক সংবাদমাধ্যম দ্য ফিনান্সিয়াল টাইমস মঙ্গলবার (২৯ নভেম্বর) এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, জ্যাক মা এখন তার পরিবারের সদস্যদের নিয়ে জাপানে আছেন। দেশটি রাজধানী টোকিওতে ছয় মাস ধরে অবস্থান করছেন তিনি। এখানে তিনি অনেকটা নীরবে জীবন-যাপন করছেন। খুব বেশি প্রকাশ্যে আসছেন না। তবে তিনি মাঝে মাঝে যুক্তরাষ্ট্র এবং ইসরায়েলে যান এবং জাপানের বিভিন্ন জায়গায় পরিবারকে নিয়ে ঘুরে বেড়ান। সেখান থেকে নিজের ব্যবসায়িক কার্যক্রমও চালাচ্ছন তিনি। এছাড়া কিছু প্রাইভেট ক্লাবে যাতায়াত করেন ইংরেজি শিক্ষক থেকে বিলিয়নিয়ার বনে যাওয়া জ্যাক। ওই ক্লাবগুলোতে চীনের ধনি শ্রেণির মানুষের যাতায়াত রয়েছে।

এদিকে, মাত্র দুই বছর আগেও জ্যাক মার সম্পত্তির পরিমাণ ছিল প্রায় ৫০ বিলিয়ন ডলার। তার মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধ চীন সরকার বিভিন্ন ব্যবস্থা নেওয়ার পর এখন তার সম্পদের পরিমাণ অর্ধেকেরও বেশি কমে গেছে। নিজ প্রতিষ্ঠানের ওপর সরকারের দমন নীতির কারণে জনসম্মুখে আসা একেবারেই কমিয়ে দিয়েছেন জ্যাক মা।

ফিনান্সিয়াল টাইমস আরও জানিয়েছে, জাপানে নিজের ব্যক্তিগত দেহরক্ষী ও ব্যক্তিগত রাঁধুনিকে নিয়ে এসেছেন জ্যাক মা। এছাড়া চীনের এক সময়ের সবচেয়ে ধনী ব্যক্তি দামি শিল্পকর্ম সংগ্রহ করছেন বলে জানিয়েছে সংবাদমাধ্যমটি।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ১:০১ অপরাহ্ণ | বুধবার, ৩০ নভেম্বর ২০২২

nypratidin.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর...

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি
 
১০১১
১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
১৯২০২১২২২৩২৪২৫
২৬২৭২৮২৯৩০৩১  

Editor : Naem Nizam

Executive Editor : Lovlu Ansar