রবিবার ২৩শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ৯ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সিটি মেয়র বললেন কনসাল জেনারেলকে

বাফেলোর প্রবাসীরা সিটির ভালোবন্ধু

প্রতিদিন ডেস্ক   |   সোমবার, ১৩ জুন ২০২২ | প্রিন্ট  

বাফেলোর প্রবাসীরা সিটির ভালোবন্ধু

বাফেলোর মেয়রকে শহীদ মিনারের প্রতিকৃতি প্রদান করেন কন্সাল জেনারেল। ছবি-বাংলাদেশ প্রতিদিন।

নিউইয়র্কস্থ বাংলাদেশের কনসাল জেনারেল ড. মোহাম্মদ মনিরুল ইসলাম ১০ জুন বাফেলো সিটির মেয়র বায়রন ডব্লিউ ব্রাউনের সাথে তাঁর কার্যালয়ে সাক্ষাত করেন। ড. ইসলাম বাফেলো সিটি এলাকায় বসবাসরত বাংলাদেশী কমিউনিটির স্বার্থ-সংশ্লিষ্ট বিষয়ে তাঁর সক্রিয় এবং অর্থবহ উদ্যোগ ও ভূমিকার জন্য মেয়রকে আন্তরিক ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন। কনসাল জেনারেল এসময় কমিউনিটির কল্যাণে আগামী দিনগুলিতে একসাথে অধিকতর ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করার অভিপ্রায় ব্যক্ত করেন।
মেয়র ব্রাউন বাফেলোতে বসবাসরত বাংলাদেশীদেরকে “ভালোবন্ধু” হিসেবে আখ্যায়িত করে তাদের মেধা, দক্ষতা ও সৃজনশীলতার প্রশংসা করেন। উল্লেখ্য, নিউইয়র্ক সিটি থেকে ৩৭৩ মাইল দূরে নায়েগ্রা জলপ্রপাতের সন্নিকটে অবস্থিত বাফেলো হচ্ছে প্রবাসীদের নতুন বসতির জনপ্রিয় একটি স্থান। গত ৬/৭ বছরে ৬০ হাজারের অধিক বাংলাদেশী নিউইয়র্ক সিটি থেকে বাফেলোতে বসতি গড়েছেন।
বাংলাদেশ ও যুক্তরাষ্ট্রের কূটনৈতিক সম্পর্কের পঞ্চাশ বছর পূর্তি হওয়ায়, এ বছরটি অতীব তাৎপর্যপূর্ণ উল্লেখ করে কনসাল জেনারেল আগামীতে দু’দেশের মধ্যেকার বিরাজমান সহযোগিতার ক্ষেত্রসমূহ আরো সুদৃঢ় ও স¤প্রসারিত হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন। বাফেলোতে বাংলা ভাষা-ভাষীর সংখ্যা ক্রমাগতভাবে বৃদ্ধি হওয়ার বিষয়টি উল্লেখ করে কনসাল জেনারেল বাফেলো -তে বাংলা ভাষাকে আরো ব্যাপকভাবে ব্যবহার ও প্রসারের বিষয়ে মেয়রের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন। প্রসঙ্গক্রমে মহান ভাষা আন্দোলনের ঐতিহাসিক প্রেক্ষাপট, চেতনা ও গুরুত ¡এবং আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের স্বীকৃতি আদায়ে ৫২’র ভাষা আন্দোলনের অবদান সম্পর্কে মেয়রকে ব্যাখ্যা করেন কনসাল জেনারেল। বাংলাদেশের ইতিহাস, ঐতিহ্য ও সংস্কৃতিকে আরো বিকশিত করার জন্য ফিল্ম ফ্যাষ্টিভাল, ফুড ফ্যাষ্টিভাল ও বাংলাদেশের উপর চিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন করা যেতে পারে যা বিভিন্ন ভাষা ও সংস্কৃতির মধ্যে সেতুবন্ধন তৈরীতে সহায়তা করবে বলে বৈঠকে মতপ্রকাশ করা হয়।
বৈঠকে কনসাল জেনারেল মেয়র বায়রনকে প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে বাংলাদেশের দৃশ্যমান আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের বিষয়ে অবহিত করেন। এসময় তিনি বাংলাদেশ সরকারের গৃহীত বিনিয়োগ- বান্ধব নীতি ও পদক্ষেপের কথা তুলে ধরেন এবং বাংলাদেশ ও যুক্তরাষ্টের মধ্যে ব্যবসা-বাণিজ্য ও বিনিয়োগের অপার সম্ভাবনা রয়েছে বলে অভিমত ব্যক্ত করেন। বাংলাদেশের উন্নয়ন ও অগ্রযাত্রার সাফল্য গাথা শুনে মেয়র ব্রাউন অভিভূত হন।
কনসাল জেনারেলের যুক্তরাষ্ট্রে কর্মকালীন সময়ের সফলতা কামনা করে মেয়র ব্রাউন আগামী দিনগুলিতে তাঁর অফিস ও বাংলাদেশ কনস্যুলেট জেনারেলের মধ্যেকার চলমান সহযোগিতা আরো গভীর ও শক্তিশালী হবে মর্মে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ১১:৪১ পূর্বাহ্ণ | সোমবার, ১৩ জুন ২০২২

nypratidin.com |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর...

আর্কাইভ ক্যালেন্ডার

রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি
 
১০১১১২১৩১৪১৫
১৬১৭১৮১৯২০২১২২
২৩২৪২৫২৬২৭২৮২৯
৩০  

Editor : Naem Nizam

Executive Editor : Lovlu Ansar